website page counter ১৫১ স্কুলে নেই প্রাথমিক শিক্ষক! - শিক্ষাবার্তা ডট কম

শুক্রবার, ২১শে ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ইং, ৮ই ফাল্গুন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

১৫১ স্কুলে নেই প্রাথমিক শিক্ষক!

ফেনী জেলায় অর্ধশত প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষকের পদ শূন্য রয়েছে। এতে বিদ্যালয় ব্যবস্থাপনা ও পাঠদান কার্যক্রম ব্যাহত হচ্ছে। সহকারী শিক্ষকের পদও শূন্য রয়েছে। সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, সদর উপজেলায় ১৫১টি প্রাথমিক বিদ্যালয় রয়েছে। এর মধ্যে মধুপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, ছোট ধলিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, রাজাপুর ধলিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, দক্ষিণ দৌলতপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, পূর্ব সুলতানপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, অলিপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, চর লালা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, দমদমা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, দক্ষিণ ফরহাদনগর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, পশ্চিম ছিলোনিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, পূর্ব ছনুয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, পশ্চিম বেতাগাঁও সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, কেরোনিয়া শহীদ স্মৃতি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও দক্ষিণ চাঁদপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষকের ১৯টি পদ শূন্য রয়েছে।

একইভাবে ফেনী জিএ একাডেমিতে একজন, মঠবাড়িয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে একজন, পূর্ব দৌলতপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে একজন, দক্ষিণ চাঁদপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে একজন, ইজ্জতপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে তিনজন, সাতসতি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দুজন, সাহাপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে একজন, আরবি হাট সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দুজন, মধ্যম শিবপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দুজন, বটতলী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দুজন, উত্তর ফাজিলপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দুজন, পূর্ব সুলতানপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে একজন, বালুয়া চৌমুহনী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে একজন, চরকালিদাস সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দুজন, দক্ষিণ ফরহাদনগর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দুজন, মধ্যম ফরহাদনগর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে একজন, তৈতোয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে একজন, ছনুয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে একজন, লেমুয়া রামপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দুজন, কেএসএস সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দুজন, উত্তর লেমুয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে একজন, দক্ষিণ চাঁদপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দুজন, মধ্য চাঁদপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে একজন, দৌলতপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দুজন, উত্তর ধলিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে একজন, হকদি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দুজন, বালিগাঁও সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দুজন, বেতাগাঁও আদর্শ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দুজন, মরুয়ারচর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে একজন, ছোট ধলিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে একজন, এলাহিগঞ্জ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দুজনসহ ৬১ জন সহকারী শিক্ষকের পদ শূন্য রয়েছে।

জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিস সূত্র জানায়, জেলার সোনাগাজী উপজেলায় ১০৯টি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মধ্যে ১৪ জন, ছাগলনাইয়া উপজেলায় ৭৮টি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মধ্যে তিনজন, ফুলগাজী উপজেলায় ৬৭টি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মধ্যে ১২জন, পরশুরাম উপজেলায় ৫১টি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মধ্যে দুজন প্রধান শিক্ষকের পদ শূন্য রয়েছে।

পাঁচগাছিয়া ইউনিয়নের ছোট ধলিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক সলিম উল্যাহ জানান, প্রায় ছয় বছর আমাদের স্কুলে প্রধান শিক্ষকের পদ শূন্য। এছাড়া সহকারী শিক্ষকের একটি পদও শূন্য রয়েছে। সদর উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক ও ফেনী মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক কাজী ওয়াজী উল্যাহ জানান, প্রধান শিক্ষক ছাড়া বিদ্যালয়ের শিক্ষার মান ও প্রশাসনিক কার্যক্রম ঠিক রাখা অসম্ভব। প্রধান শিক্ষক ও সহকারী শিক্ষকের সব শূন্য পদ পূরণে উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কমিটির সভায় এ বিষয়ে একাধিকবার বলা হয়েছে। সদর উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা সাইফুর রহমান জানান, প্রধান শিক্ষক ও সহকারী শিক্ষক পদ পূরণে কর্তৃপক্ষ আন্তরিক চেষ্টা চালাচ্ছে। আশা করছি, দ্রুত সংকট কেটে যাবে।

জানতে চাইলে জেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা নুরুল ইসলাম বলেন, ইতোমধ্যে সহকারী শিক্ষকের শূন্য পদ পূরণে চূড়ান্তভাবে নির্বাচিত প্রার্থীদের কাগজপত্র যাচাই-বাছাই করতে সময় নির্ধারণ করা হয়েছে। প্রধান শিক্ষকের শূন্যপদ পূরণের জন্য ইতোমধ্যে ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের জানানো হয়েছে। শিক্ষক নিয়োগ দিয়ে এই সংকটের সমাধান করা হবে।

এই বিভাগের আরও খবরঃ