website page counter ইবিতে ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষ, আহত ১০ - শিক্ষাবার্তা ডট কম

বুধবার, ১১ই ডিসেম্বর, ২০১৯ ইং, ২৬শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

ইবিতে ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষ, আহত ১০

ইবি প্রতিনিধি-এম বি রিয়াদ।।
ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে (ইবি) শাখা ছাত্রলীগ কর্মীদের মধ্যে কয়েক দফায় সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। বুধবার (২০ নভেম্বর) সন্ধ্যায় ৬ টার দিকে ক্যাম্পাসের জিয়া হল মোড় এলাকায় এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এতে উভয় গ্রুপের অন্তত দশ জন কর্মী আহত হয়েছে বলে জানা গেছে।

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, সন্ধ্যায় জিয়া হল মোড়ে ল’ এন্ড ল্যান্ড ম্যানেজমেন্ট বিভাগের ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষের রিজভী আহমেদ ওশান হেঁটে যাচ্ছিল। তখন ওশানকে লোক প্রশাসন বিভাগের ২০১৬-১৭ শিক্ষাবর্ষের ঝিনুক, আলাল ইবনে জয় এবং চঞ্চু চাকামা ডাকে। এসময় জুনিয়র ওশান সিনিয়রদের সাথে খারাপ আচরণ করে বলে অভিযোগ করেন সিনিয়ররা। একপর্যায়ে সিনিয়ররা ওশানকে চড়Ñথাপ্পড় মারে। পরে ওশান হলে গিয়ে তার বন্ধুদের ডেকে আনে।

একপর্যায়ে জুনিয়ররা সিনিয়রদের প্রতি অতর্কিক হামলা করে। পরে উভয়গ্রুপের নেতা-কর্মীরা দফায় দফায় সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এসময় তাদের হাতে হকিস্টিক, বাঁশ, জিআই পাইপ ও বিভিন্ন লাঠিসোটা দেখা যায়। এতে বাধন, আলাল ইবনে জয়, শাহাজালাল ইসলাম সোহাগ, স্বাধীন, সালমানসহ অন্তত ১০ জন কর্মী আহত হয়েছে।

আহতদের মধ্যে সাত জনকে বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় চিকিৎসা কেন্দ্রে পাঠানো হয়েছে। সেখানেও তারা হাতাহাতিতে জড়িয়ে পড়ে বলে জানা যায়। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে ক্যাম্পাস এলাকায় এখনো (রাতে) থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছে আবাসিক শিক্ষার্থীদের মাঝে।

ঘটনাস্থলে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ড. পরেশ চন্দ্র বর্মণ ও ছাত্রলীগের সিনিয়র নেতারা এসে পরিস্থিতি শান্ত করেন।

এ বিষয়ে প্রক্টর (দ্বায়িত্বপ্রাপ্ত) অধ্যাপক ড. পরেশ চন্দ্র বর্মন বলেন, ‘বিষয়টি শোনামাত্র আমি ঘটনাস্থলে পৌঁছাই। উভয় গ্রুপকে স্ব-স্ব হলে পাঠিয়ে দিয়েছি। গভীররাত পর্যন্ত ক্যাম্পাসে থাকব। আশা করছি নতুন করে কোনো সমস্যা হবে না।’

এই বিভাগের আরও খবরঃ