website page counter দর্শকের কথা চিন্তা করে কাজ করি - শিক্ষাবার্তা ডট কম

বুধবার, ২০শে নভেম্বর, ২০১৯ ইং, ৫ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

দর্শকের কথা চিন্তা করে কাজ করি

ঢালিউডের শীর্ষ নায়ক শাকিব খান। এখন ব্যস্ত ‘আগুন’, ‘বীর’, ‘একটা প্রেম দরকার’সহ বেশকিছু সিনেমা নিয়ে। সামনে আসছে আরও বেশকিছু চমক। এ মাসেই পারফর্ম করতে দুবাই যাচ্ছেন। সমসাময়িক বিষয়ে কথা বলেছেন তিনি

এসকে মুভিজের সিনেমায় আবার…

কলকাতার অন্যতম সেরা প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান এসকে মুভিজ। তাদের কয়েকটি সিনেমা আমি করেছি। সবশেষ কাজ করেছিলাম ‘ভাইজান এল রে’ সিনেমায়। তাদের সঙ্গে আমার প্রতিটি সিনেমাই ব্যবসায়িক সফলতা পেয়েছে। এরপর মাঝে বছর দেড়েক আর কোনো কাজ হয়নি এই প্রতিষ্ঠানটির সঙ্গে। মূলত আমার নিজস্ব প্রযোজনার সিনেমা আর দেশি সিনেমাতেই ব্যস্ত থাকার কারণে বাইরের কাজ করা হয়নি। কিন্তু এখন দেশি সিনেমাগুলোর কাজ মোটামুটি গুছিয়ে এনেছি। তাই এসকে মুভিজের সঙ্গে আবারও কাজ করার পরিকল্পনা চলছে। একটি নয়, তারা আমার সঙ্গে বেশকিছু সিনেমা করতে চায়। সব কটি ছবিই হবে বাংলাদেশি। গত ২১ অক্টোবর ‘বাংলাদেশ ভারত ফিল্ম অ্যাওয়ার্ড’ অনুষ্ঠানে যোগ দিতে ঢাকা এসেছিলেন এসকে মুভিজের ব্যবস্থাপনা পরিচালক অশোক ধানুকা। তখন ছবির কাজ নিয়ে আমার সঙ্গে আলোচনা করে গেছেন। এখন কলকাতায় চূড়ান্ত আলোচনা হবে। আসছে ৭ নভেম্বর কলকাতা যেতে হতে পারে আমাকে।

শাহরুখের রেড চিলিসের আমন্ত্রণে আবুধাবি

তৃতীয় বারের মতো আবুধাবিতে বসছে ‘টি-টেন’ ক্রিকেট টুর্নামেন্টের আসর। এর জমকালো উদ্বোধনী অনুষ্ঠান হবে ১৪ নভেম্বর। ওই অনুষ্ঠানে বাংলাদেশের একমাত্র প্রতিনিধি হিসেবে অংশ নিচ্ছি আমি। আরও পারফর্ম করবেন দক্ষিণ ভারতীয় মেগাস্টার মামোত্তি, পাকিস্তানি শিল্পী আতিফ আসলাম, বলিউড তারকা নোরা ফাতেহি ও দক্ষিণ ভারতের সুপার মডেল ও অভিনেত্রী পার্বতী নয়ার। শুনেছি, বলিউড সুপারস্টার শাহরুখ খান ও সানি লিওনও উপস্থিত থাকবেন। এই ক্রিকেট টুর্নামেন্টের উদ্বোধনী অনুষ্ঠান আয়োজন করছে শাহরুখ খানের প্রতিষ্ঠান ‘রেড চিলিজ এন্টারটেইনমেন্ট’। ওই কোম্পানির ৪-৫ ম্যানেজার বাংলাদেশে এসে আমার সঙ্গে মিটিং করে গেছেন। আমি ‘রেড চিলিজ এন্টারটেইনমেন্ট’-এর অতিথি হয়ে সেখানে পারফর্ম করব। তারা আমাকে বাংলাদেশের সুপারস্টার হিসেবে সম্মান দেখিয়ে সেখানে আমন্ত্রণ জানিয়েছে। এটা সত্যিই গর্বের বিষয়। আমি আবুধাবির উদ্দেশে রওনা দেব ১২ নভেম্বর, দেশে ফিরব ১৬ নভেম্বর।

পুুরস্কারের বছর…

আমি দর্শকের কথা চিন্তা করে কাজ করি। তাদের যে ভালোবাসা ও আস্থা আমার প্রতি দীর্ঘদিন ধরে তৈরি হয়েছে তার মূল্য দিতে হলেও আমাকে ভালো কাজ করতে হয়। তবে পরিশ্রম করে কাজ করে যদি সুধীজনের কাছ থেকে কোনো পুরস্কার পাওয়া যায় সেটি অত্যন্ত আনন্দের। এটাও কাজের স্বীকৃতি। এ বছর ‘ভারত বাংলাদেশ ফিল্ম অ্যাওয়ার্ড’-এ আমি সেরা জনপ্রিয় অভিনেতার পুরস্কার পেয়েছি। আমার প্রযোজিত ‘পাসওয়ার্ড’ চারটি ক্যাটাগরিতে পুরস্কার পেয়েছে। শুনেছি জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারে ‘সত্তা’ সিনেমার জন্য সেরা অভিনেতা হিসেবে আমাকে মনোনীত করা হয়েছে। আমি সবার প্রতি কৃতজ্ঞ।

এই বিভাগের আরও খবরঃ