website page counter ক্রিকেটারদের আন্দোলনে ফিকা'র সমর্থন - শিক্ষাবার্তা ডট কম

শুক্রবার, ২১শে নভেম্বর, ২০১৯ ইং, ৭ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

ক্রিকেটারদের আন্দোলনে ফিকা’র সমর্থন

দ্য ফেডারেশন অব ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেটার্স অ্যাসোসিয়েশনস (ফিকা) ক্রিকেটের একটি আন্তর্জাতিক সংস্থা। ১৯৯৮ সালে টেক্সাসের অস্টিনে এ সংস্থাটি গঠিত হয়। বিশ্বের সকল জাতীয় খেলোয়াড়দের সংগঠনে অন্তর্ভুক্ত পেশাদার ক্রিকেটারদের কার্যক্রমকে সমন্বয় সাধন করাই এ সংস্থার প্রধান কাজ। ফিকা’র মাধ্যমেই ‘আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিলের ক্রিকেটিং প্লেয়িং কমিটিতে’ খেলোয়াড়দের সমস্যাবলী তুলে ধরা হয়।

বাংলাদেশ ক্রিকেটারদের আন্দোলনের সমর্থনে বিবৃতি দিয়েছে আন্তজার্তিক ক্রিকেটারদের সংগঠন ফিকা। পারিশ্রমিক বাড়ানো সহ ক্রিকেটারদের যাবতীয় সুবিধা আদায়ের জন্য ক্রিকেটারদের দেওয়া ধর্মঘটে সাকিব-তামিমরা পাচ্ছেন ফিকার সমর্থন।

পারিশ্রমিক বাড়ানো সহ ক্রিকেটারদের যাবতীয় সুবিধা আদায়ের জন্য ধর্মঘটের ডাক দিয়েছেন বাংলাদেশ ক্রিকেট টিমের খেলোয়াড়রা। বিসিবির চুক্তিতে থাকা ক্রিকেটার ও ঘরোয়া লিগের খেলোয়াড়রা মিলে সোমবার এই দাবি উত্থাপন করেছে মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে। একাডেমি প্রাঙ্গণে মুশফিক,তামিম, সাকিব সহ একে একে সবাই বিভিন্ন দাবি তুলে ধরেন। ১১ দফা দাবি না মানা অবধি সব ধরনের ক্রিকেট খেলা, ক্যাম্প, অনুশীলন থেকে বিরত থাকবেন জাতীয় দলের ক্রিকেটাররা। এমতাবস্থায় বেশ অস্থিতিশীলতাই দেখা দিয়েছে বাংলাদেশের ক্রিকেটে।

কিন্তু তাদের এসব দাবির কথা শুনে হতাশা প্রকাশ করেছেন বিসিবি’র প্রেসিডেন্ট নাজমুল হাসান পাপন। এমনকি ধর্মঘটের কথা বিশ্বাসই করতে পারছেন না বলেও জানিয়েছেন তিনি।

ক্রিকেটারদের দাবির প্রেক্ষিতে নিজেদের মতামত জানাতে গিয়ে পাপন বলেন, ‘আমি বিশ্বাস করতে পারছি না। আমাদের ক্রিকেটাররা এমন কিছু করতে পারে ভাবতেই পারছি না। তাদের সঙ্গে আমার ব্যক্তিগত সম্পর্ক অনেক গভীর। সবাই সব সমস্যার সমাধানে আমার কাছে আসে। আমি যথাসাধ্য সমাধান করার চেষ্টা করি। কিন্তু এবার ওরা আমাকে কিছুই জানায়নি। আমি ওদের দাবিগুলো বুঝতে পারছি না।’

বিসিবি সভাপতি বলেন, ‘ওরা ক্রিকেটের উন্নয়নের কথা বললেও আমি ওদের ধর্মঘট থেকে উন্নয়নের কিছু পাই না। আমার মনে হয় বাংলাদেশের ক্রিকেটকে ডিস্টাব্লিস করার উদ্দেশ্যে কেউ পেছন থেকে ষড়যন্ত্র করছে। কারা দেশের বিরুদ্ধে কাজ করছে, সেটা বের করা জরুরি। বাইরে কে করছে, তা আমরা জানি। দলের ভেতরে কে এমন করছে, সেটা বের করব শিগগিরই। ভেতরে ভেতরে কে ষড়যন্ত্র করছে, তা অটো বের হয়ে যাবে।’

২৫ অক্টোবর থেকে ভারত সফরের ক্যাম্প শুরু হওয়ার কথা। কিন্তু ধর্মঘটের কারণে ক্যাম্প অনিশ্চিত। ক্যাম্প নিয়ে নাজমুল হাসান বললেন, ‘ক্যাম্প শুরু হচ্ছে, খেলোয়াড়েরা যদি যোগ দেয় তো দেবে, নয়তো দেবে না। ক্যাম্পে যদি যোগ না দেয়। তাহলে কিছু করার থাকবে না। হ্যাঁ, ওরা বসতে চাইলে আমরা রাজি আছি।’

এই বিভাগের আরও খবরঃ