website page counter ১১ ও ১০ গ্রেডের দাবিতে ৪ দিনের কর্মবিরতির ১ম দিন সম্পন্ন - শিক্ষাবার্তা ডট কম

শনিবার, ২২শে নভেম্বর, ২০১৯ ইং, ৮ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

১১ ও ১০ গ্রেডের দাবিতে ৪ দিনের কর্মবিরতির ১ম দিন সম্পন্ন

নিউজ ডেস্ক।।

বাংলাদেশ প্রাথমিক শিক্ষক ঐক্য পরিষদের ডাকে সারা দেশের ন্যায় নোয়াখালী জেলা প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোতেও সহকারি শিক্ষকগণের ১১ তম গ্রেড ও প্রধান শিক্ষকদের ১০ গ্রেডে বেতন ভাতাদি ঘোষণার দাবীতে ১৪ অক্টোবর থেকে ১৭ অক্টোবর -২০১৯ তারিখ পর্যন্ত ঘোষিত কর্মবিরতির অংশ হিসেবে অদ্য ১৪ অক্টোবর সকাল ১০.০০ -১২.০০ ঘটিকা পর্যন্ত ২ ঘন্টা স্বতঃফূর্ত ভাবে বিদ্যালয়গুলোতে কর্মবিরতি পালন করেছেন।

এ বিষয়ে নোয়াখালী জেলা ঐক্য পরিষদে আহবায়ক মোঃ আব্দুল আলিম সূজন, সদস্য সচিব মোঃ ফিরোজ উদ্দিন শিক্ষা বার্তা ডটকমকে এক প্রশ্নের জবাবে বলেন আমরা প্রাথমিক শিক্ষকরা ২০১৪ খ্রিঃ থেকেই নিজেদের সামজিক মর্যাদা বৃদ্ধি, রুটি রুজির সম্মানজনক অবস্থায় পৌঁছানোর জন্য দেশের সাধ্যের মধ্যে বেতন কাঠামোর উন্নয়ন করা সম্ভব সেই রকম দাবী নিয়ে বিভিন্ন সময় বিভিন্ন কর্মসূচী পালন করেছি। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকালীন সময়ে আমাদের আশ্বস্ত করেছিলেন শিক্ষকদের বেতন বৈষম্য দূর করণের।

কিস্তু কোন এক অদৃশ্য কারণে দীর্ঘ সময় পার হলেও বেতন বৈসম্য দূরীকরণ তো হয়ই নি বরং অর্থ মন্ত্রণালয় মতামত ব্যক্ত করেছেন বেতন বৃদ্ধির সুযোগ নেই বলে। তারা আরো বলেন আমরা প্রাথমিক শিক্ষকরা নিরুপায় হয়ে আন্দোলনের কর্মসূচীতে রয়েছি, আগামি মাসেই ৫ম শ্রেণির শিশুদের সমাপনী পরীক্ষা এবং পরবর্তীতে অন্যান্য শ্রেণির শিশুদের বার্ষিক পরীক্ষা সে বিষয়েও সজাগ রয়েছি। আমাদের দাবীর যৌক্তিকতা অনুধাবন করে বিভিন্ন সময়ে দায়িত্বশীল কর্তৃপক্ষ সহমত প্রকাশ করলেও আশার প্রতিফলন ঘটেনি।

আগামি দিন ১৫ অক্টোবর ১০-১. ০০ ঘটিকা ৩ ঘন্টার কর্মবিরতির কর্মসূচী সকল শিক্ষক বিদ্যালয়ে আন্তরিকতার সাথে পালন করবেন এ প্রত্যাশা ব্যক্ত করেন এবং আজকের কর্মসুচি সফলভাবে সম্পন্ন করার জন্যে সকল শিক্ষককে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন।

দাবী আদায়ে সংশ্লিষ্ট সকল কর্তৃপক্ষের আন্তরিক সহযোগিতার হাতি বাড়িয়ে দেয়ার আহবান জানান।

এই বিভাগের আরও খবরঃ