অধিকার ও সত্যের পক্ষে

বঙ্গবন্ধুর অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশের স্বপ্ন পূরণ করতে হবে: জবি উপাচার্য

 নিজস্ব প্রতিবেদক ॥

প্রতি বছররে ন্যায় এবারো ব্যাপক উৎসাহ ও উদ্দীপনা মধ্য দিয়ে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে উদ্যাপিত হচ্ছে সনাতন ধর্মাবলম্বীদের অন্যতম ধর্মীয় উৎসব সরস্বতী পূজা। জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় পূজা কমিটি এ পূজার আয়োজন করে থাকে। সনাতন ধর্মমতে, শ্বেতশুভ্র রাজহংসের পিঠে চড়ে জ্ঞানের আলো ছড়াতে পৃথিবীতে আসেন বিদ্যাদেবী সরস্বতী। দেবীর আগমন উপলক্ষে সনাতন ধর্মাবলম্বী শিক্ষার্থীরা পূজামন্ডপে দেবীর প্রতিমা স্থাপন করে। এবার পোগোজ ল্যাবরেটরি স্কুল অ্যান্ড কলেজসহ (আইইআর, জবি) জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে মোট ৩৭টি পূজামন্ডপে পূজা অনুষ্ঠিত হয়।

পূজা উপলক্ষ্যে বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে পুরান ঢাকাসহ রাজধানীর বিভিন্ন জায়গা থেকে আগত মানুষদের আগমনে উৎসবে পরিণত হয় পুরো জবি ক্যাম্পাস। বিশ্ববিদ্যালয়ের নতুন একাডেমিক ভবন, ভাষা শহীদ রফিক ভবনের সামনে,কলা অনুষদের মাঠ ও বিজ্ঞান অনুষদের মাঠ সব জায়গাতেই শিক্ষার্থীরা নেচে গেয়ে উৎসবের আমেজ সৃষ্টি করে।

পূজামণ্ডপ পরিদর্শন শেষে উপাচার্য অধ্যাপক ড. মীজানুর রহমান বলেন, অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশে মিলে-মিশে বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের দেশ গড়ে তুলতে হবে। সেই সঙ্গে পরস্পরের মধ্য বৈষম্যগুলো দূর করে বাংলাদেশকে সমৃদ্ধির পথে এগিয়ে নিতে হবে।’

তিনি আরও বলেন, আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়ে সনাতন ধর্মাবলী শিক্ষার্থী ও শিক্ষকদের সংখ্যা বৃদ্ধি পাচ্ছে তাই আমরা আগামীতে জাঁকজমকপূর্ণ দূর্গাপুজার আয়োজন করবো।

এ সময় জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় পূজা উদ্যাপন কমিটির সভাপতি অধ্যাপক ড. প্রিয়ব্রত পাল, সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড. অরুণ কুমার গোস্বামী, বিভিন্ন অনুষদের ডিন, শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড. দীপিকা রাণী সরকার, রেজিস্ট্রার প্রকৌশলী মোঃ ওহিদুজ্জামান, বিভিন্ন বিভাগের চেয়ারম্যান, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় কর্মকর্তা সমিতি ও সাংবাদিক নেতৃবৃন্দ সংক্ষিপ্ত বক্তব্য প্রদান করেন।

শিক্ষা বার্তা-আ.আ.হ/মৃধা

একই ধরনের আরও সংবাদ

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.