অধিকার ও সত্যের পক্ষে

মতিঝিল আইডিয়ালে ভর্তি লটারিতে অনিয়ম, ২য় দিনেও দুদকের অভিযান

 নিজস্ব প্রতিবেদক ॥

রাজধানীর মতিঝিলের আইডিয়াল স্কুল অ্যান্ড কলেজে ২০১৯ শিক্ষাবর্ষে প্রথম শ্রেণীতে ভর্তির লটারি প্রক্রিয়ায় অনিয়ম ও দুর্নীতির অভিযোগে মঙ্গলবার দ্বিতীয় দিনের মতো অভিযান চালিয়েছে দুদকের এনফোর্সমেন্ট ইউনিট।

সহকারী পরিচালক ফারুক আহমেদ, উপসহকারী পরিচালক জিন্নাতুল ইসলামসহ দুদকের পুলিশ ইউনিটের সদস্যরা এ অভিযানে নেয়।

অভিযান প্রসঙ্গে এনফোর্সমেন্ট ইউনিটের প্রধান সমন্বয়ক ও মহাপরিচালক (প্রশাসন) মুনীর চৌধুরী বলেন, শিক্ষা খাতের দুর্নীতি দূর করে সুশাসন প্রতিষ্ঠায় দুদকের নজরদারি ও অভিযান অব্যাহত থাকবে।

আইডিয়াল স্কুল অ্যান্ড কলেজের ৩টি শাখায় প্রথম শ্রেণীতে মোট ৮৪০ জন শিক্ষার্থী ভর্তি করা হবে। এর মধ্যে বালক ও বালিকা পৃথক ক্যাটাগরিতে মতিঝিল ও বনশ্রী শাখায় বাংলা ও ইংরেজি উভয় ভার্সনে এবং মুগদা শাখায় শুধু বাংলা ভার্সনে ভর্তি হবে। সোমবার ৬টি ক্যাটাগরির লটারি এবং মঙ্গলবার ৪টি লটারি অনুষ্ঠিত হয়। সকাল ৯টা থেকে সাড়ে ১১টা পর্যন্ত লটারি পর্যবেক্ষণ করে দুদক টিম ফলাফল বলপেন বা অমোচনীয় কালি দিয়ে লেখা নিশ্চিত করে, যা আগে পেন্সিলে লেখা হতো। অন্যদিকে বালক ক্যাটাগরিতে নির্বাচিত তালিকার পাশাপাশি অপেক্ষমাণ তালিকা প্রকাশ নিশ্চিত করা হয়।

এদিকে এসএসসির ফরম পূরণে নরসিংদীর মনোহরদীর একদুয়ারিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের ৭৫ জন শিক্ষার্থীর কাছ থেকে অতিরিক্ত টাকা নেয়ার অভিযোগে ৫ ডিসেম্বর অভিযান চালায় দুদক। সহকারী পরিচালক ফজলুল বারী ও উপসহকারী পরিচালক আতাউর রহমান সরকারের সমন্বয়ে একটি এনফোর্সমেন্ট টিমের এ অভিযানের পরিপ্রেক্ষিতে অতিরিক্ত নেয়া ৮৩ হাজার ৪শ’ টাকা ১০ ডিসেম্বর শিক্ষার্থীদের ফেরত দেয়া হয়।

শিক্ষা বার্তা-আ.আ.হ/মৃধা

একই ধরনের আরও সংবাদ

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.