১৬ হাজার স্কুলছাত্রী বাইসাইকেল পাচ্ছে

নিজস্ব প্রতিবেদক।।

অধ্যায়নরত ষষ্ঠ শ্রেণীর ১৬ হাজার ছাত্রীকে বাইসাইকেল দেয়ার পরিকল্পনা নিয়েছে সরকার। বাল্যবিয়ে প্রতিরোধে স্কুলগামী ছাত্রীদের নিরবচ্ছিন্ন শিক্ষা কার্যক্রম বাস্তবায়ন, কিশোরী ক্ষমতায়ন এবং সহজে ও নির্ভয়ে পথ চলার জন্য এই সাইকেল প্রদানের কর্মসূচি। প্রতিটি সাইকেলের দাম ধরা হয়েছে পৌনে ১৪ হাজার টাকা। আর এই প্রকল্পের জন্য খরচ ধরা হয়েছে ২৫ কোটি টাকা বলে মহিলা ও শিশুবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের প্রস্তাবনা থেকে জানা গেছে।

মহিলা ও শিশুবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের প্রস্তাবনায় বলা হয়েছে ষষ্ঠ শ্রেণীর দরিদ্র মেধাবী স্কুলগামী ছাত্রীদের নির্ভয়ে পথ চলা ও ক্ষমতায়নে বাইসাইকেল প্রদানের পরিকল্পনা নিয়েছে। এখন আট বিভাগের ৮ জেলার ছাত্রীদের এই সাইকেল দেয়া হবে। উদ্দেশ্য কিশোরীদের নারী উদ্যোক্তা হিসাবে আত্মপ্রকাশে সহায়তা করা। ভবিষ্যৎ প্রজন্মের মধ্যে নারী নেতৃত্ব মনোভাব সৃষ্টি করা।

জেলাগুলো হলো- রাজবাড়ীর চারটি উপজেলা, জামালপুরের ৬টি, খাগড়াছড়ির ৮টি, সুনামগঞ্জের ১০টি, চাঁপাইনবাবগঞ্জের ৪টি, কুড়িগ্রামের ৮টি, ঝিনাইদহের ৬টি এবং বরগুনার ৫টি উপজেলায়। প্রকল্পের ব্যয়ের হিসাবে দেখা যায়, ১৬ হাজার বাইসাইকেল কিনতে খরচ হবে ২২ কোটি টাকা। প্রতিটির দর ১৩ হাজার ৭৫০ টাকা। কর্মশালা, সেমিনার ও সভা খাতে ব্যয় ৫০ লাখ টাকা। তিন হাজার ১৫৫টি প্রকাশনায় খরচ ২০ লাখ টাকা। অন্যান্য মনিহারিতে ব্যয় ৯ লাখ টাকা। মুদ্রণ ও বাঁধাইতে ২ লাখ টাকা। বিজ্ঞাপনে ২০ লাখ টাকা। হায়ারিং চার্জে ৪৫ লাখ টাকা। ১৬ হাজার বাইসাইকেলের পাম্প মেশিন ও লকচেইন কিনতে সোয়া এক কোটি টাকা। ব্যবস্থাপনা ব্যয় ১০ লাখ টাকা। সম্মানী ২০ লাখ টাকা।