স্কুলের শিক্ষার্থীরাও যোগ দিলেন ইরানের আন্দোলনে

অনলাইন ডেস্ক।।

ইরানের চলমান ‘নৈতিকতা পুলিশ’ বিরোধী আন্দোলনে যোগ দিয়েছে দেশটির স্কুলের মেয়েরা।

হিজাব ইস্যু নিয়ে নৈতিকতা পুলিশের হাতে আটক হয়ে মাসা আমিনি নামে এক কুর্দি তরুণীর মৃত্যুর পর ইরানে আন্দোলন ছড়িয়ে পরে। টানা ১৮ দিন ধরে এ নিয়ে চলছে বিক্ষোভ-বিশৃঙ্খলা।

গণমাধ্যম বিবিসি জানিয়েছে, ইরানে বেশ কয়েকটি স্কুলের মেয়েরা তাদের স্কুল ক্যাম্পাসের ভেতর মিছিল করে। যাদের বেশিরভাগ তাদের হিজাব খুলে ফেলে। এরপর সেগুলো হাতে নিয়ে তারা বিক্ষোভ করে।

একটি ভিডিওতে দেখা যায় একজন সরকারি কর্মকর্তাকে খালি বোতল, পানি ছুড়ে মারছে শিক্ষার্থীরা। ওই কর্মকর্তাকে বের হয়ে যেতে বলছিল তারা। উপায় না দেখে ওই কর্মকর্তা শেষ পর্যন্ত বের হয়ে যান।

সোমবার সিরাজ শহরের একটি স্কুলের মেয়েরা প্রধান রাস্তা আটকে দেয়। তারা আয়াতুল্লাহ খামেনির বিরুদ্ধে স্লোগান দিতে থাকেন।

এরপর মঙ্গলবার রাজধানী তেহরান, সাকিজ এবং সানানদাজে অবস্থিত মেয়েদের স্কুলগুলোতে আন্দোলন হয়।

ইরানের সর্বোচ্চ নেতা আয়াতুল্লাহ খামেনি মাসা আমিনির মৃত্যুর ব্যাপারে সোমবার কথা বলেন। তিনি পুলিশের পক্ষ নেন। এরপর ইরানের বিভিন্ন স্কুলের মেয়েরা আন্দোলনে নামেন।

সূত্র: বিবিসি