ম্যানেজিং কমিটি নিয়ে দ্বন্দ্বে রংপুরে ছাত্র নিহত

রংপুরের পীরগঞ্জে স্কুলের ম্যানেজিং কমিটির নির্বাচনকে কেন্দ্র করে দুই গ্রুপের সংঘর্ষে অষ্টম শ্রেণির এক শিক্ষার্থী নিহত হয়েছে। এসময় পুলিশের ওসিসহ কমপক্ষে ১৫ জন আহত হয়েছে। সোমবার দুপুরে উপজেলার মদনখালি ইউনিয়নের খেতাবের পাড়া উচ্চ বিদ্যালয়ে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ছয়জনকে আটক করেছে।
নিহত শিক্ষার্থী সুমন ইসলাম আকাশ চৈত্রকোল ইউনিয়নের অনন্তরামপুর গ্রামের কৃষক আনোয়ারুল ইসলামের ছেলে। সে খেতাবপাড়া পল্লী মন্ডল উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী।পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, খেতাবেরপাড়া উচ্চ বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি পদে নির্বাচন ঘিরে সোমবার সকাল থেকে প্রধান শিক্ষক নুরন্নবী তালুকদার ও সহকারী শিক্ষক আনোয়ারুল ইসলামের দ্বন্দ্বের জের ধরে দুই পক্ষের মধ্যে উত্তেজনা দেখা দেয়। একপর্যায়ে দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ বেধে যায়।

এতে সুমন ইসলাম আকাশ নামে ওই শিক্ষার্থী গুরুতর আহত হয়ে ঘটনাস্থলেই মারা যায়।সংঘর্ষ চলাকালীন পীরগঞ্জ থানা ওসি আবদুল আউয়ালসহ প্রধান শিক্ষককে অবরুদ্ধ করে রাখেন একটি পক্ষ। পরে অতিরিক্ত পুলিশ গিয়ে ওসি আব্দুল আউয়ালসহ অন্যান্যদের উদ্ধার করে। এসময় পুলিশের ওসি, দুই এসআইসহ কমপক্ষে ১৫ জন আহত হয়েছেন।
আহতদের কয়েকজনকে পীরগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

এ বিষয়ে পীরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুল আউয়াল জানান, বর্তমানে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। এ ঘটনায় বেশ কয়েকজনকে আটক করা হয়েছে। পৃথক পৃথকভাবে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।