বাণিজ্যমন্ত্রী জানালেন চিনির দাম বৃদ্ধির কারন

অনলাইন ডেস্ক।।

বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি বলেছেন, গ্যাসের জন্য চিনি উৎপাদন কম হয়েছিল, এ জন্য চিনির দাম বাড়াতে হয়েছে। কিন্তু আগামী দুতিন দিনের মধ্যে গ্যাসের সমস্যা কিছুটা সমাধান হবে।

বৃহস্পতিবার সচিবালয়ে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে দ্রব্যমূল্য ও বাজার পরিস্থিতি পর্যালোচনা সংক্রান্ত টাস্কফোর্সের চতুর্থ সভায় সভাপতিত্ব করেন তিনি। সভাশেষে সাংবাদিকদের তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, চিনি নিয়ে নেতিবাচক প্রভাব দেখছি না, চিনিটা অ্যাভেইলেবল। জানুয়ারি পর্যন্ত কোনো সমস্যা নেই। যে সমস্যা আমরা পেয়েছি, সেটি হলো গ্যাসের সাপ্লাই অপ্রতুলতার কারণে ৬৬ শতাংশের বেশি চিনি উৎপাদন করতে পারছে না। আশা করি দু’একদিনের মধ্যে গ্যাসের সরবরাহ স্বাভাবিক হলে যে পরিমাণ চিনি দরকার তা উৎপাদন সম্ভব হবে।

টিপু মুনশি বলেন, অনেক চিনি গুদামে পড়ে আছে, সেটি প্রক্রিয়াজাত করতে পারলে বাজারে আসবে। গ্যাসের সমস্যা সমাধান হলে এটি প্রসেস করা যাবে। যারা গ্যাসের বিষয়টি দেখে, তারা বলছেন পরিস্থিতির উন্নয়ন ঘটছে। বিদ্যুতের অবস্থা ইমপ্রুভ করবে। তবে ভয় পাওয়ার কিছু নেই।

দ্রব্যমূল্য নিয়ে তিনি বলেন, দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণ করা যাচ্ছে না ডলারের মূল্যবৃদ্ধির কারণে। তাই বিশ্ববাজারে জিনিসপত্রের দাম কমলেও আমাদের বাজারে সে রকম প্রভাব পড়ছে না। গ্যাস সংকট অনেকটা কমে আসছে। ফলে এর প্রভাব পড়বে উৎপাদনের ওপর। তাই কিছু দিনের মধ্যেই চিনিসহ কয়েকটি পণ্যের দাম কমে আসবে।

মন্ত্রী আরও বলেন, দ্রুত সময়ের মধ্যে তেলের দাম আবার সমন্বয় করা হবে। তবে সব কিছু মিলে মানুষকে এত চিন্তা করার কারণ নেই, দ্রব্যমূল্যের দাম নিয়ন্ত্রণে সরকার চেষ্টা করে যাচ্ছে।