বাগেরহাটে প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে ৪০ লাখ আত্মসাতের অভিযোগে মামলা

 মোঃ মোজা‌হিদুর রহমান।।

বাগেরহাটে প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্বে বিজ্ঞ অতিরিক্ত চীফ জুডিসিয়াল আদালতে মামলা দায়ের করেছে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবার। মামলার অভিযোগ ও স্কুলের আভ্যন্তরীন অডিট রিপোটে জানাগেছে, বাগেরহাট সদরের কে,জে,এস,পি,ইউঃ স্কুল এ্যান্ড কলেজের প্রধান শিক্ষক আনন্দ কুমার পাল গত ২৭ আগস্ট ২০১৯ তারিখ নিয়োগ বহিভুত ভাবে সহকারী প্রধান শিক্ষক থাকা সত্তেও একজন সহকারী শিক্ষককে ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষকের দায়িত্ব দিয়ে নিয়োগ বোর্ডের সদস্য সচীব করে নিয়োগ বোর্ড গঠন করে অসাদুপায়ে প্রতিষ্ঠানে যোগদানের পর থেকে অব্যবস্থাপনা অনিয়ম ও দুনিতী করে আসছেন।

তিনি নিয়ম বহিভুত ভাবে এমপি ও নীতিমালা বহিভুত ভাবে একজন নৈশ প্রহরীকে শুন্যপদ দেখিয়ে গত ০২/০৯/২০ তারিখ প্রতিবেশী সাদ্দাম নামে এজনের কাছ থেকে ৪ লক্ষ টাকা উৎকোস নিয়ে প্রধান শিক্ষক তাকে নিয়োগ দেন যা পুর্বে কখনোই এ পদে নিয়োগ প্রাপ্ত ছিলোনা বলে বাদী মামলায় উল্লেখ করেন নৈশ প্রহরী সাদ্দামের অনলাইনে বেতনের আবেদন করলে ডি.ডিপিআই হতে স্ট্যাপিং প্যাটার্ন অনুযায়ী প্রাপ্যতা নাই বলে বিদ্যালয়ে ফেরৎ আসে।

পরবর্তিতে প্রধান শিক্ষক আনন্দ কুমার পাল নৈশ প্রহরীর বিপরীতে পদ সমন্বয় করে নিরাপত্তা কমি পদে গত ২২,১২,২০ তারিখ ০৯/৪২০/২০২০ একটি রেজুলেশন করে আবারো নিয়ম বহিভুত ভাবে নিয়োগ পত্র দিয়েছেণ। যাহা এমপি ও নীতিমালা ২০১৮ অনুযায়ী বুদ্বি প্রাপ্ত নতুন পদ এ পরিপত্র মোতাবেক ২০২১-২০২২ অর্থ বছরে নিয়োগ দেওয়ার নির্দেশনা রয়েছে। যার স্বারক নং ৩৭,৭৪,২০১৭ (অংশ -১) ১৪৬ তারিখ ৩০/০৫/২০১৯।

কে জে এস পি,ইউঃ স্কুল এ্যান্ড কলেজের সহকারী প্রধান শিক্ষক নলিনী রঞ্জন পাল ও সহকারী শিক্ষক রফিকুল ইসলাম বলেন, প্রধান শিক্ষক বিদ্যালয়ের মাঠ সংস্কারের কাজ না করেই ৪০ হাজার টাকা আত্মসাত করেছেন, তিনি বলেন প্রতিষ্ঠান প্রধান শিক্ষক আমার স্বাক্ষর করা ছাড়া কোনো কাজ নেই। তিনি ছাত্র ছাত্রী ভর্তির আইডি ও পাসওয়ার্ড পাওয়া সত্বে ও প্রতিষ্ঠানের ষষ্ঠ শ্রেনীর রিকুইজিশন প্রদান করেন নাই ফলে বিদ্যালয়ে ৩০/১২/২০২১ পর্যন্ত মেয়দ থাকলে ও ছাত্র ছাত্রীদের এখনো ভর্তি করা সম্ভব হয়নি।

এবিষয়ে প্রধান শিক্ষক আনন্দ কুমার পালের সাথে কথা হলে তিনি অভিযোগ অস্বিকার করে বলেন, গত বুধবার সকালে বিদ্যালয়ে আমাকে কতিপয় সহকারী শিক্ষক মারধর করে মোবাইল ফোন ও নগদ টাকা ছিনিয়ে নিয়েছে বলে তিনি দাবী করেন। তিনি বিষয়টি উর্দ্ধতন কর্মকর্তাদের অবগত করেছেন বলে জানান।