ফিকার প্রথম নারী সভাপতি স্টালেকার

নিজস্ব প্রতিবেদক।।

নতুন সভাপতি নির্বাচন করেছে ফেডারেশন অব ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেটার্স অ্যাসোসিয়েশন (ফিকা)। অস্ট্রেলিয়ার সাবেক অধিনায়ক লিসা স্টালেকারকে এই পদে নিয়োগ দিয়েছে তারা। এতে প্রথমবারের মতো ক্রিকেটারদের এই আন্তর্জাতিক সংগঠনের প্রধান হলেন কোনো নারী। সুইজারল্যান্ডের নিয়নে হওয়া ফিকার নির্বাহী কমিটির সভায় এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

ইংল্যান্ডের সাবেক ব্যাটসম্যান বিক্রম সোলাঙ্কির স্থলাভিষিক্ত হলেন স্টালেকার। এর আগে ফিকার সভাপতির দায়িত্ব পালন করেন দক্ষিণ আফ্রিকার সাবেক ব্যাটসম্যান ব্যারি রিচার্ডস ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের সাবেক অলরাউন্ডার জিমি অ্যাডামস।

১৮৭ আন্তর্জাতিক ম্যাচে অস্ট্রেলিয়া নারী দলের প্রতিনিধিত্ব করেন স্টালেকার। ২০১০ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনালে নিউ জিল্যান্ডের বিপক্ষে জয়ে বড় অবদান ছিল তার। অস্ট্রেলিয়ার সেরা নারী ক্রিকেটারের স্বীকৃতি ‘বেলিন্ডা ক্লার্ক পুরস্কার’ টানা দুইবার অর্জন করেন তিনি, ২০০৭ ও ২০০৮ সালে।
২০০১ সালে অস্ট্রেলিয়া দলে অভিষেক হয় আগ্রাসী ব‍্যাটার স্টালেকারের। ওয়ানডেতে ছিলেন তিনি দুর্দান্ত। এই সংস্করণে ১২৫ ম্যাচ খেলে দুই সেঞ্চুরি ও ১৬ ফিফটিতে রান করেন ২ হাজার ৭২৮। তার অফ স্পিন ছিল বেশ কার্যকর। ১৪৬ উইকেট নিয়ে তিনি এখনও ওয়ানডেতে সেরা ১০ উইকেট শিকারির তালিকায় আছেন।

২০১৩ সালের বিশ্বকাপ জিতে আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ারের ইতি টেনে দেন স্টালেকার। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ফাইনালে ২০ রানে ২ উইকেট নিয়ে রাখেন বড় অবদান। ২০২১ সালে চতুর্থ নারী ক্রিকেটার হিসেবে অস্ট্রেলিয়ার ক্রিকেট হল অব ফেমে জায়গা করে নেন তিনি।

খেলোয়াড়ী জীবন শেষে ধারাভাষ্যে ক্যারিয়ার গড়েন ৪২ বছর বয়সী স্টালেকার। অস্ট্রেলিয়ার ক্রিকেটার্স অ্যাসোসিয়েশনের সঙ্গেও কাজ করার অভিজ্ঞতা আছে তার। এবার পুরো বিশ্বের ক্রিকেটারদের জন্য কাজ করার সুযোগ পেয়ে বেশ রোমাঞ্চিত স্টালেকার।

তিনি বলেন, ফিকার নতুন সভাপতি হতে পেরে আমি অত্যন্ত সম্মানিত ও রোমাঞ্চিত। আমরা খেলাটির নতুন একটি পর্যায়ে প্রবেশ করছি, যেখানে অন‍্য যে কোনো সময়ের চেয়ে আমাদের পুরুষ ও নারী ক্রিকেটাররা বেশি গুরুত্ব পাচ্ছে। অনেক দেশ এখন ক্রিকেট খেলছে, এটি প্রমাণ করে যে ক্রিকেট অবশ্যই একটি বৈশ্বিক খেলা হয়ে উঠছে।