দেশে ফাইজারের টিকা ব্যবহারের অনুমতি

প্রকাশিত: ৭:৫০ অপরাহ্ণ, বৃহঃ, ২৭ মে ২১

অনলাইন ডেস্ক :

করোনা ভাইরাস (কোভিড-১৯) প্রতিরোধে জরুরি ভিত্তিতে ফাইজার-বায়োএনটেকের তৈরি করা টিকা দেশে ব্যবহারের জন্য অনুমতি দেওয়া হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২৭ মে) ওষুধ প্রশাসন অধিদপ্তরের মহাপরিচালক মেজর জেনারেল মোহাম্মদ মাহবুবুর রহমান স্বাক্ষরিত এক বিবৃতিতে এ তথ্য জানানো হয়।

এতে জানানো হয়, ২৪ মে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্যসেবা বিভাগে ফাইজার-বায়োএনটেকের টিকা ইমার্জেন্সি ইউজ অথরাইজেশনের জন্য ওষুধ প্রশাসন অধিদপ্তর আবেদন করা হয়। ২৫ মে অধিদপ্তর ভ্যাকসিনের ডোসিয়ার (ক্লিনিক্যাল ট্রায়াল পার্ট, সিএমসি পার্ট এবং রেগুলেটরি স্ট্যাটাস) মূল্যায়ন করে এ সংক্রান্ত গঠিত কমিটির মতামতের জন্য উপস্থাপন করে। ওই কমিটির সুপারিশের ভিত্তিতে ওষুধ প্রশাসন অধিদপ্তর বৃহস্পতিবার ফাইজার-বায়োএনটেকের এ টিকার জরুরি ব্যবহারের জন্য অনুমোদন দেয়।

আরও জানানো হয়, ভ্যাকসিনটির লোকাল লিগ্যাল অর্গানাইজেশন হিসেবে থাকছে স্বাস্থ্য সেবা বিভাগ, স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়। ফাইজারের টিকা ১২ বছরের বেশি বয়সের মানুষের জন্য ব্যবহারযোগ্য। তবে বাংলাদেশে সরকারের ডেপ্লয়মেন্ট প্ল্যান অনুযায়ী নির্ধারিত বয়সের ব্যক্তিদের মধ্যে এ টিকা দেওয়া হবে। ফাইজারের টিকার দুই ডোজের মধ্যে প্রথম ডোজের তিন থেকে চার সপ্তাহ পর দ্বিতীয় ডোজ দেওয়া হবে।

মন্তব্যসমূহ বন্ধ করা হয়.