ঢামেকে ডেঙ্গু রোগীর ব্যাপক চাপ, রক্ত পরীক্ষায় টিম

নিজস্ব প্রতিবেদক।।

ডেঙ্গুতে আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা প্রতিদিন বেড়েই চলেছে। ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের ১০ তলা নতুন ভবনে মেডিসিন রোগীর পাশাপাশি প্রতিদিনই ডেঙ্গু রোগে আক্রান্ত রোগীদের ভর্তি নেয়া হচ্ছে।

হাসপাতালে ডেঙ্গু রোগীদের জন্য বরাদ্দ বেড খালি না থাকায় ওয়ার্ডের ফ্লোরে, বারান্দায় ভর্তি নিয়ে রোগীদের চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। রোগীদের রক্ত পরীক্ষার জন্য ১০ জনের একটি টিম গঠন করেছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। সেই টিমের সদস্যরা রোগীদের বিভিন্ন পরীক্ষায় সহযোগিতা করছেন। এতে রোগীরা দ্রুত পরীক্ষার রিপোর্ট হাতে পাচ্ছেন। বাংলা নিউজ।

গতকাল রাতে হাসপাতালের নতুন ভবনে গিয়ে দেখা যায়, ডেঙ্গু রোগীদের পাশাপাশি সাধারণ রোগীরাও চিকিৎসা নিচ্ছেন। তবে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের নির্দেশে ৬০২ নম্বর ওয়ার্ডের দুটি কক্ষ আলাদা করা হয়েছে। সেখানে ডেঙ্গু রোগীদের আলাদা রাখা হয়েছে। কক্ষ দুটিতে রোগীরা মশারি টানিয়ে চিকিৎসা নিচ্ছেন।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক নতুন ভবনের এক কর্মকর্তা জানান, শনিবার পর্যন্ত ১৬৬ জন ডেঙ্গু রোগী নতুন ভবনে চিকিৎসাধীন আছেন। হাসপাতালের পরিচালকের নির্দেশে আমরা ৬০২ নম্বর ওয়ার্ডের দুটি কক্ষ আলাদা করেছি। রোববার সকালে অন্যান্য ওয়ার্ডেরও দুই-একটি কক্ষ আলাদা করা হবে ডেঙ্গু রোগীদের জন্য। নতুন ভবনের ৯ তলায় করোনায় আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসা দেয়া হয়।

তাদের আলাদাভাবেই রাখা হয়। পাশাপাশি ৮ তলা থেকে ৬ তলা পর্যন্ত মেডিসিন রোগীর পাশাপাশি ডেঙ্গু রোগী ভর্তি রেখে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে বলে জানান ওই কর্মকর্তা।
হাসপাতালের নতুন ভবনের দ্বিতীয় তলায় প্যাথলজি বিভাগের প্রধান ডা: আব্দুল আজিজ জানান, প্রতিদিন প্রায় তিনশোর মতো ডেঙ্গু পরীক্ষার স্যাম্পল সংগ্রহ করে থাকি। এটা ভর্তি রোগীর পাশাপাশি হাসপাতালের বহির্বিভাগ থেকেও আসে।

এই পরীক্ষার মধ্যে আনুমানিক ১০ শতাংশ রোগী ডেঙ্গু পরীক্ষায় পজিটিভ আসে। এসব পরীক্ষা সম্পূর্ণ ফ্রিতে করা হয়। তিনি আরো বলেন, ডেঙ্গু রোগে আক্রান্তের এমন সংখ্যা একবার করোনার আগে দেখা দিয়েছিল। সেটা আবার পুনরায় দেখা দিচ্ছে! ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল নাজমুল হক বলেন, নতুন ভবনের মেডিসিন ওয়ার্ডে প্রতিদিনই ডেঙ্গু রোগে আক্রান্ত রোগী ভর্তি হচ্ছে। তাদের চিকিৎসা চলছে এবং রোগীর সংখ্যা এখন আগের তুলনায় বেশি। ডেঙ্গু রোগীদের আলাদা রুমে রেখে চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হচ্ছে। ইতোমধ্যে আলাদা করার কাজ শুরু হয়েছে।

ডেঙ্গু রোগী শনাক্তে সেখানে সাইনবোর্ড লাগানো হয়েছে। তিনি জানান, হাসপাতালের প্যাথলজিতে ডেঙ্গু রোগীর সব রকম রক্তের পরীক্ষা করা হচ্ছে। ডেঙ্গু রোগীদের রক্তের পরীক্ষায় সহযোগিতা করার জন্য দৈনিক মজুরিতে নিয়োগপ্রাপ্ত নিয়ে ১০ জনের একটি টিম ইতোমধ্যে নতুন ভবনে কাজ করছে। তারা চিকিৎসকের নির্দেশ অনুযায়ী হাসপাতালের প্যাথলজি ভবনে ডেঙ্গু রোগীরা দ্রুত যেন রক্তের পরীক্ষার রিপোর্ট পেতে পারে সেই ব্যবস্থা করছে। ডেঙ্গু রোগীদের জন্য ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটের আইসিইউ সেন্টার প্রস্তুত আছে বলেও জানান হাসপাতালের পরিচালক।