ডিপ্লোমা শিক্ষা ৩ বছরে আনা বন্ধে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা

প্রকাশিত: ৮:৩৮ পূর্বাহ্ণ, সোম, ১৯ জুলাই ২১

নিউজ ডেস্ক।।

৪ বছর মেয়াদি ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ারিং কোর্স ৩ বছরে নামিয়ে আনতে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের উদ্যোগের প্রতিবাদে মানববন্ধন করেছেন বাংলাদেশ ছাত্র,শিক্ষক পেশাজীবী সংগ্রাম পরিষদ।

রোববার আগারগাওয়ে কারিগরি শিক্ষা অধিদপ্তরের সামনে এ মানবন্ধন করা হয়। এ সময় শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সিদ্ধান্তকে জনবিরোধী ও হঠকারী আখ্যা দিয়ে এটি বন্ধে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হস্তক্ষেপ চেয়েছেন সংশ্লিষ্টরা।

বক্তারা বলেন, একাধিক জাতীয় পর্যায়ের কমিটির সুপারিশের ভিত্তিতে ২০০১ সালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ারিং শিক্ষা কোর্স আন্তর্জাতিক মানে উন্নীতকরণের লক্ষ্যে ৪ বছরে উন্নীত করেছেন। ৪ বছরে কোর্স ট্রেডিশনাল টেকনোলজির সঙ্গে মডার্ন টেকনোলজির সমন্বয় করে কোর্স কারিকুলাম ঢেলে সাজানো হয়েছে। এরপরও অবকাঠামো, শিক্ষক সংকটসহ নানা কারণে দেশের কারিগরি শিক্ষার যথাযথ বিকাশ হচ্ছে না।

এর কারণ হিসেবে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের ভুল সিদ্ধান্তকে দায়ী করেন বক্তারা। তারা বলেন, সম্ভাবনা থাকা সত্ত্বেও শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের বার বার ভুল সিদ্ধান্তের কারণে এই শিক্ষার উন্নতি হচ্ছে না। এই পরিস্থিতিতে চার বছরের কোর্স তিন বছরে নামিয়ে আনা হলে শিক্ষার্থীদের গুণগত বিকাশ আরও নষ্ট হবে। যা হবে আত্মঘাতী। এ ধরনের অদূরদর্শী সিদ্ধান্ত থেকে শিক্ষা মন্ত্রণালয় সরে না এলে ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার, ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ারিং কোর্সের ছাত্রছাত্রী ও শিক্ষকেরা সমন্বিতভাবে দেশব্যাপী দুর্বার আন্দোলন গড়ে তুলতে বাধ্য হবেন বলে হুশিয়ারি দেওয়া হয়।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন, বাংলাদেশ ছাত্র,শিক্ষক পেশাজীবী সংগ্রাম পরিষদের সদস্য সচিব মির্জা মো. এ টি এম গোলাম মোস্তফা, শিক্ষক সমিতির সভাপতি আমানুল্লাহ ইউসুফজাই, বাংলাদেশ কারিগরি ছাত্র পরিষদের আহবায়ক জনাব মেহেদি হাসান ও সদস্য সচিব জনাব সাইফুল ইসলাম মোল্লা। এছাড়া বিভিন্ন সার্ভিস এসোসিয়েশনের সভাপতি সাধারণ সম্পাদকসহ শতাধিক সদস্য প্রকৌশলী উপস্থিত ছিলেন।

মন্তব্যসমূহ বন্ধ করা হয়.