আন্তর্জাতিক ফ্লাইট ফের চালু করছে ভারত, নিষিদ্ধ বাংলাদেশসহ ১৪ দেশ

নিউজ ডেস্ক।।

আগামী ১৫ ডিসেম্বর থেকে ফের আন্তর্জাতিক ফ্লাইট শুরু করছে ভারত। তবে বাংলাদেশসহ ১৪ টি দেশের আন্তর্জাতিক ফ্লাইটের ওপর স্থগিতাদেশ এখনও বহাল রেখেছে দেশটির সরকার। খবর পিটিআই ও হিন্দুস্তান টাইমসের।

শুক্রবার সরকারের এক জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা এ সম্পর্কে ভারতের সংবাদমাধ্যম হিন্দুস্থান টাইমসকে বলেন, ‘আগামী ১৫ ডিসেম্বর থেকে আন্তর্জাতিক ফ্লাইট চলাচল স্বাভাবিক হচ্ছে ভারতে। তবে বাংলাদেশ, সিঙ্গাপুর, বতসোয়ানা, চীন, মরিশাস, নিউজিল্যান্ড, জিম্বাবুয়ে, সাউথ আফ্রিকা, ব্রাজিল, ফিনল্যান্ড, নেদারল্যান্ডস, জার্মানি, ফ্রান্স ও যুক্তরাজ্যের সঙ্গে বিমান যোগাযোগে স্থগিতাদেশ আপাতত বহাল থাকবে।’

ওই কর্মকর্তা আরও জানান, সম্প্রতি করোনাভাইরাসের একটি নতুন রূপান্তরিত ধরন শনাক্ত হয়েছে এবং আশঙ্কা করা হচ্ছে- এই ধরনটি অন্যান্য পরিবর্তিত ধরনের তুলনায় অনেক বেশি সংক্রামক ও টিকা প্রতিরোধী। এই বিষয়টিকে গুরুত্ব দিয়েই ১৪ দেশের সঙ্গে বিমান যোগাযোগ বিষয়ক স্থগিতাদেশে কোনো পরিবর্তন আনা হয়নি।

বৃহস্পতিবার দক্ষিন আফ্রিকায় শনাক্ত হয়েছে বি.১.১৫২৯ নামে করোনাভাইরাসের একটি নতুন রূপান্তরিত ধরন। যুক্তরাজ্যের সরকারি স্বাস্থ্য নিরাপত্তা সংস্থা শুক্রবার এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, নতুন শনাক্ত হওয়া এই রূপান্তরিত ধরনটির স্পাইট প্রোটিন মূল করোনাভাইরাসের থেকে অনেকটাই ভিন্ন। ফলে, মূল করোনাভাইরাস থেকে এই ধরনটির ধ্বংসাত্মক ক্ষমতা অনেক বেশি- এমন শঙ্কা উড়িয়ে দেওয়ার উপায় নেই।

ইতোমধ্যে দক্ষিণ আফ্রিকায় ২২ জন রোগী বি.১.১৫২৯ ধরনটিতে আক্রান্ত হয়েছেন বলে নিশ্চিত করেছে দেশটির সরকারি স্বাস্থ্যসেবা কর্তৃপক্ষ।

দক্ষিণ আফ্রিকার পাশাপাশি হংকং ও বতসোয়ানায় এই ধরনটিতে আক্রান্ত রোগীর সন্ধান পাওয়া গেছে বলে বিবৃতিতে উল্লেখ করেছে যুক্তরাজ্যের স্বাস্থ্য নিরাপত্তা সংস্থা।

বিশ্বজুড়ে করোনা মহামারি শুরু হওয়ার পর ২০২০ সালে আন্তর্জাতিক ফ্লাইট চলাচলে নিষেধাজ্ঞা দেয় ভারতের সরকার। অবশ্য তার কিছুদিন পর কয়েকটি দেশের সঙ্গে পুনরায় ফ্লাইট যোগাযোগ চালু করে দেশটি।

বর্তমানে করোনায় দৈনিক সংক্রমণ-মৃত্যু কমে যাওয়া ও টিকাদান কর্মসূচির গতি বাড়ার ফলে করোনা বিষয়ক বেশ কিছু বিধিনিষেধ শিথিল হচ্ছে ভারতে। আগামী ১৫ ডিসেম্বর থেকে আন্তর্জাতিক ফ্লাইট পুনরায় চালুর সিদ্ধান্তও তারই অংশ।