অধিকার ও সত্যের পক্ষে

নয়দফা দাবিতে নোবিপ্রবিতে শিক্ষার্থীদের অবস্থান ধর্মঘট

 কামরুল হাসান শাকিম

নয় দফা দাবী আদায়ের লক্ষ্যে অবস্থান ধর্মঘট পালন করছে নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি  বিশ্ববিদ্যালয়ের (নোবিপ্রবি) সাধারণ শিক্ষার্থীরা। মঙ্গলবার (৭ আগবস্ট) সকাল ৯ টা থেকে ১২ টা  পর্যন্ত অ্যাকাডেমিক ভবন-১,২ এবং লাইব্রেরি ভবনের সামনে অবস্থান করে ভবনগুলোতে তালা ঝুলিয়ে  অবস্থান ধর্মঘট পালন করেছে তারা। এর ফলে নির্ধারিত সময়ের পরীক্ষাসহ একাডেমিক কার্যক্রম
স্থগিত হয়ে পড়ে।

শিক্ষার্থীদের নয় দফা দাবিগুলো হলো – আবাসিক সমস্যার স্থায়ী সমাধান, ২৪ ঘন্টা চিকিৎসা  সেবাপ্রদান, পুর্বের ব্যাকলগ প্রথা পুনর্বহাল, মানোন্নয়ন পরীক্ষার নূন্যতম জিপিএ ২.৫ করা, ব্যাকলগ  ও ই¤প্রুভমেন্ট পরীক্ষার ফি (প্রবেশপত্র সহ) ৩০০ টাকা করা, বিএনসিসি ও রোবার স্কাউটের জন্য বাৎসরিক ফি বাতিল করা  স্নাতকের   সকল ক্রেডিট পূরনের জন্য ১৪ সেমিস্টার সুযোগ দেয়া, অসুস্থ শিক্ষার্থীদের জন্য সিক বেডে পরীক্ষা দেয়ার ব্যবস্থা করা এবং আবাসিক হলগুলোতে ডাইনিংয়ে ভর্তুকি প্রদান করা।

পরবর্তীতে শিক্ষার্থীরা নয়দফা দাবী সম্বলিত স্মারকলিপি ভিসি স্যার বরাবর প্রদান করে আজকের  মত ধর্মঘট প্রত্যাহার করে শিক্ষার্থীরা।শিক্ষার্থীরা জানান, এগুলো আমাদের ন্যায্য দাবী, এ দাবীগুলো নোবিপ্রবির সকল শিক্ষার্থীর দাবী। দাবীগুলোর ব্যাপারে প্রশাসন দ্রুত সমাধানের ব্যবস্থা না নিলে আবারো আন্দোলনে যাবেন বলে তারা জানান।

বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর মুশফিকুর রহমান বলেন, পূর্ব ঘোষনা ব্যাতিরেকে শিক্ষার্থীদের এমন ধর্মঘট  হতাশাজনক । তিনি শিক্ষার্থীদের অবস্থান ধর্মঘট তুলে নিয়ে ক্লাশে ফিরে যাওয়ার আহবান জানান।  শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত নয়দফা দাবী সম্বলিত স্মারকলিপি ভিসি স্যার বরাবর প্রদান করে আজকের  মত ধর্মঘট প্রত্যাহার করে শিক্ষার্থীরা।

এদিকে উদ্ভ‚ত পরিস্থিতিতে করনীয় ঠিক করতে এবং শিক্ষকদের নিজ নিজ বিভাগে প্রবেশে বাধা  দেয়ায় বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে অবস্থান নেন বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি এসময় শিক্ষক সমিতির সভাপতি ড. আবদুল্লাহ আল মামুন সহ অন্যান্য শিক্ষকেরা বিশ্ববিদ্যালয়ের স্বাভাবিক পরিবেশ বিঘ্নিত করে কথায় কথায় এমন ধর্মঘটের তীব্র নিন্দা জানান।

উল্লেখ্য, উদ্ভ‚ত পরিস্থিতি মোকাবেলায় সকাল থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন আছে।

একই ধরনের আরও সংবাদ