অধিকার ও সত্যের পথে

সেপ্টেম্বর থেকে স্কুলে স্মার্টফোন নিষিদ্ধ

 নিউজ ডেস্ক।।

ইউরোপের অনেক দেশের শিশুরা স্কুলে স্মার্টফোনসহ অন্য স্মার্ট ডিভাইস নিয়ে যায়। পড়ার ফাঁকে ঢুঁ মারে স্ক্রিনে। এবার তা আর হবে না। শিশুদের স্মার্টফোন আসক্তি দূর করার উদ্যোগ নিয়েছে ফ্রান্স। ‘স্মার্টফোন বা স্মার্ট ডিভাইস’ স্কুলে নিতে পারবে না ফরাসি শিক্ষার্থীরা। কেউ স্কুলে স্মার্টফোন বা স্মার্ট ডিভাইস নিয়ে গেলেও বন্ধ রাখতে হবে। গত সোমবারই দেশটির সংসদে এ-সংক্রান্ত একটি আইন পাস হয়েছে।

সিএনএনের খবরে বলা হয়েছে, স্মার্টফোন, স্মার্টওয়াচ, ট্যাবলেট ও অন্যান্য ডিভাইস যেগুলোতে ইন্টারনেট ব্যবহার করা যায়, স্কুলে সেসব ডিভাইস ব্যবহারে শিক্ষার্থীদের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে ফ্রান্স। নিষেধাজ্ঞাটি আগামী সেপ্টেম্বর থেকে সারা দেশের স্কুলগুলোতে কার্যকর হবে। ৩ থেকে ১৫ বছর বয়সী শিক্ষার্থীদের জন্যই এ নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে।

আগামী সেপ্টেম্বর থেকে নিজস্ব ‘স্মার্টফোন বা স্মার্ট ডিভাইস’ বাসায় রেখে স্কুলে যেতে হবে ফরাসি শিক্ষার্থীদের। কেউ স্কুলে তার স্মার্টফোন বা স্মার্ট ডিভাইস নিয়ে গেলে তা বন্ধ করে রাখতে হবে। শিশুদের ওপর নিষেধাজ্ঞাটি বাধ্যতামূলক হলেও, ১৫ বছরের বেশি বয়সের শিক্ষার্থীসম্পন্ন উচ্চমাধ্যমিক স্কুলগুলোতেও এ নিষেধাজ্ঞা কার্যকর করা হবে কি না, তা ঠিক করবে স্কুল কর্তৃপক্ষ।

শিক্ষা বা সহশিক্ষা কার্যক্রমের মতো বিশেষ ক্ষেত্রে নিয়ম শিথিল করা হয়েছে। শিক্ষার্থীদের পড়াশোনায় আরও মনোযোগী করে তুলতেই এই নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে।

শিক্ষামন্ত্রী জেন-মিশেল ব্লাঙ্কুয়ার দেশটির টেলিভিশন চ্যানেলকে বলেন, ‘আমরা আজকাল দেখি যে স্ক্রিনের প্রতি আসক্তি বাড়ছে। এটা মোবাইলের নেতিবাচক ব্যবহার। আমাদের উচিত শিশুদের এখান থেকে বের করে আনা। স্কুল শিশুদের শিক্ষার অন্যতম প্রধান ধাপ। তাই আইনে শিশুদের মোবাইল বা স্টার্ম ভিডাইসের ব্যবহারের অনুমতি নেই।’

একই ধরনের আরও সংবাদ