অধিকার ও সত্যের পক্ষে

১২০০ শিশু শিক্ষার্থীর জন্য ৮ জন শিক্ষক

 হাসান ভুইয়া।

কুমিল্লার চান্দিনা উপজেলা সদরের অন্যতম প্রাথমিক বিদ্যাপিঠ চান্দিনা আদর্শ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে   ১ হাজার ১শ’ ৩৫ জন শিশু শিক্ষার্থীদের বিপরীতে মাত্র ৮ জন শিক্ষক দিয়ে চলছে পাঠদান। উপজেলা পর্যায়ের সব চেয়ে বেশি শিক্ষার্থীদের পাঠদানের চাপ নিয়ে শিক্ষক সংকটে ব্যহত হচ্ছে ওই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানটির শিক্ষা কার্যক্রম।

সম্প্রতি সহকারি শিক্ষক থেকে প্রধান শিক্ষক পদে পদোন্নতি লাভ করায় ওই বিদ্যালয় থেকে এক সাথে পাঁচ শিক্ষকের পদোন্নতিজনিত বদলীতে শিক্ষক সংকট দেখা দেয় উপজেলা পর্যায়ের গুরুত্বপূর্ণ ওই প্রতিষ্ঠানটিতে। আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে পদোন্নতি পাওয়া আরো একজন শিক্ষক বদলী হওয়ার কথা রয়েছে।

দুই শিফটে পরিচালিত বিদ্যালয়টিতে ১৬টি শ্রেণী কক্ষ থাকলেও প্রতি শিফটে ১০টি শ্রেণীকক্ষে পাঠদান পরিচালনা করছে আটজন শিক্ষক। এতে একদিকে যেমন পাঠদানের সুষ্ঠু পরিবেশ নেই অপরদিকে প্রচন্ড গরমে অসুস্থ হয়ে পড়ছে অনেক শিক্ষার্থীও। পাশাপাশি শিক্ষকরাও পাঠদান হিমশিম খাচ্ছে।

বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক কাউছারুজ্জামান জানান, পদোন্নতি পাওয়ার সাথে সাথে এ বিদ্যালয় থেকে চলতি মাসের ৫ তারিখের মধ্যে পাঁচজন শিক্ষক অন্যত্র বদলী হওয়ায় চাপের মুখে পড়তে হয়েছে আমাদের। এব্যাপারে উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে অবহিত করেছি। ২৬ জুলাইয়ের পর হয়তো নতুন কোনো সিদ্ধান্ত হতে পারে।

এব্যাপারে চান্দিনা উপজেলা শিক্ষা অফিসার এএইচএম শাহরিয়ার রসুল জানান, ইতিমধ্যে আমি ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে অবহিত করেছি। ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের অনুমতিক্রমে আগামী সপ্তাহে দুইজন শিক্ষক ডেপুটেশনে নিয়োগ দিবো। এর বেশি দিতে হলে আবারো ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের অনুমতির প্রয়োজন হবে।

একই ধরনের আরও সংবাদ