অধিকার ও সত্যের পক্ষে

‘বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা জনগণের টাকায় পড়ে’

 জাবি প্রতিনিধি :

পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা জনগণের টাকায় পড়াশোনা করে। জনগণের দেওয়া করের অর্থেই প্রধানমন্ত্রীসহ প্রজাতন্ত্রের সকল কর্মচারীর বেতন দেওয়া হয়।

শুক্রবার বিকেলে ছাত্র ইউনিয়ন জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের সভাপতি নজির আমিন চৌধুরী ও সাধারণ সম্পাদক আরিফুল ইসলাম এবং সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্ট জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের সভাপতি সুস্মিতা মরিয়ম ও সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ দিদার স্বাক্ষরিত দুইটি পৃথক বিবৃতিতে এসব কথা বলা হয়।

এসব বিবৃতিতে, বৃহস্পতিবার জাতীয় সংসদের একুশতম অধিবেশনের সমাপনী আলোচনায় কোটা সংস্কার আন্দোলনে অংশ নেওয়া পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের নিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বক্তব্যের প্রতিবাদ ও নিন্দা জানানো হয়।

বিবৃতিগুলোতে বলা হয়, সারা পৃথিবীতেই শিক্ষা খাতে বরাদ্দকে বিনিয়োগ হিসেবে দেখানো হলেও দুর্ভাগ্যের বিষয় আমাদের দেশের দায়িত্বশীলরা একে ভর্তুকি হিসেবে দেখাতেই বেশি স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করেন। বিভিন্ন সময় সরকারের বিভিন্ন মহল থেকে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্য করে বিভিন্ন রকম তাচ্ছিল্যপূর্ণ বক্তব্য গণমাধ্যমে এসেছে। কিন্তু সরকারের প্রধান নির্বাহী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার এমন বক্তব্যে ছাত্রসমাজ ক্ষুব্ধ।

বিবৃতিগুলোতে প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য শুধু পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের নয় বরং আপামর জনসাধারণের জন্যেও অপমানজনক বলে উল্লেখ করা হয়। প্রধানমন্ত্রীর এ বক্তব্য প্রত্যাহারের দাবি জানানো হয়।

একই ধরনের আরও সংবাদ