ঢাকা, ২৩ ফেব্রুয়ারী, ২০১৭, ১০ ফাল্গুন, ১৪২৩

ইমেইলঃ shikshabarta@gmail.com

প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সময়সূচী নিয়ে ভেবে দেখবেন কি !

নিজস্ব প্রতিবেদক | জানুয়ারি ৭, ২০১৭ - ১১:০৮ পূর্বাহ্ণ


রোকসানা রত্না, ফরিদপুরঃ এক বাংলাদেশ, একই প্রাথমিক বিদ্যালয়, একই শিক্ষানীতি, একই পাঠপুস্তক একই যোগ্যতাসম্পন্ন শিক্ষক তথা আনুসাঙ্গিক আরো কার্য্যক্রম প্রায় কিন্তু বিভিন্ন স্থানে বিভিন্ন সময়সূচী!!!!কোমলমতি শিশুদের কথা ভেবে বাংলাদেশের সকল প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সময়সূচীর প্রস্তাবনাঃ

*সকাল ৯:০০টা থেকে বেলা ২:০০টা অথবা,
সকাল ১০:০টা থেকে বিকাল ৩:০০টা করা এখন অতিব জরুরী। কারণ কোমলমতি শিক্ষার্থীরা দীর্ঘ সময় বিদ্যালয়ে ঝিমিয়ে পড়ে। তাদের মধ্যে এক ধরণের ক্লান্তি বা অস্বস্তি কাজ করে পাশাপাশি শিক্ষকদের ক্ষেত্রেও সমস্যা হয় তাদের অমনোযোগী আচরণের কারণে।

* শ্রদ্ধার সাথে আবেদন করছি যাঁরা প্রাথমিক বিদ্যালয় নিয়ে সরকারের উচ্চ পর্যায়ে রয়েছেন তাঁরা তো অনেক গবেষণা করে থাকেন, প্লিজ বিদ্যালয়ের সময়সূচী নিয়ে কিছু একটা ভাবুন। একটা জাগে যে পরিমাণ পানি ধরবে তার বেশি ভরানোর চেষ্ঠা করলে পানি উপছিয়ে গড়ে পড়বে, তেমনি প্রাথমিক শিক্ষার্থীদের ক্ষেত্রেও ঘটছে।

*বাংলাদেশের সব দপ্তরে এমনকি মাধ্যমিক বিদ্যালয় ও উচ্চ মাধ্যমিকে মধ্যাহ্ন বিরতি ১ঘন্টা আর আমাদের প্রাথমিক বিদ্যালয়ে মাত্র ৩০ মিনিট !!!!! এটা অমানবিক।।।

* আবার প্রাথমিক বিদ্যালয়েই স্থান ভেদে সময়ের বিভিন্নতা লক্ষণীয় যা কখনই কাম্য হতে পারে না।।

ঢাকা মহানগরী‌তেঃ–
** সকাল ৭:৩০ টা থে‌কে দুপুর ২:১৫ পর্যন্ত ।
ঢাকার কেরানীগঞ্জ শহ‌রের ২ শিফট এর বিদ্যালয় চ‌লেঃ
১ম শিফটঃ সকাল ৬:৩০ টা থে‌কে ১২টা পর্যন্ত ।
২য় শিফটঃ ‌১২ টা থে‌কে ৫:৩০ পর্যন্ত চ‌লে ।
‌উপজেলা,জেলা শহর সহ গ্রামাঞ্চলের বিদ্যালয় গু‌লোঃ
সকাল ৯:০০ টা থে‌কে ৪:৩০ টা পর্যন্ত ।

* বাংলা‌দে‌শের সকল প্রাথ‌মিক বিদ্যালয়ের সময়সূচী সকাল ৯:০০ টা থে‌কে দুপুর ২:০০ টা পর্যন্ত অথবা, সকাল ১০:০০টা থেকে বিকাল ৩:০০ টা পর্যন্ত করা
এখন সম‌য়ের দাবী।

*মাননীয় মন্ত্রী মহোদয়, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়,গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার, তথা গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারকের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা
মহোদয় উপরোক্ত বিষয় সুবিবেচনান্তে আশুব্যবস্থা গ্রহনের জন্য সবিনয়ে বিনীত নিবেদন রাখছি।

* বাংলাদেশের প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সন্মানিত সকল প্রধান শিক্ষক ও সহকারি শিক্ষকগণের প্রতি অনুরোধ রাখছি সবাই একযোগে একই দাবী করে বিষয়টি সবার দৃষ্টিগোচরে আনুন।

শিক্ষক ও কলামিষ্ট..

শেয়ার করুন

পাঠকের মন্তব্যঃ ১টি

  1. আমার কাছে যা মনে হয় তা হলো।
    ১। প্রতিটা বিদ্যালয়ে অফিস কক্ষ সহ মোট ৭টি কক্ষ নিশ্চিত করা।
    ২। এর ফলে সকাল ০৯:০০ ঘটিকা থেকে দুপুর ১২:০০ ঘটিকা পর্যন্ত প্রাক-প্রাথমিক,১ম শ্রেণি ও ২য় শ্রেণি এর রুটিন মতো পাঠদান সম্পন্ন হবে এবং পাশাপাশি ৩য় শ্রেণি,৪র্থ শ্রেণি ও ৫ম শ্রেণির ৩টি বিষয় শেষ হয়ে যাবে।
    ৩। ৩য় শ্রেণি,৪র্থ শ্রেণি ও ৫ম শ্রেণির বাকি ৩টি বিষয় বেলা ০২:০০ ঘটিকার মধ্যে খুব সহজে সম্পন্ন করা যাবে।
    ৪। প্রতিটা বিদ্যালয়ে পর্যাপ্ত শিকক্ষকের ব্যবস্থা নিশ্চিত করতে হবে।
    বি:দ্র: এতে শিক্ষক ও শিক্ষার্থী তথা দেশের শিক্ষার লক্ষ্যে খুব সহজে পৌঁছা সম্ভব বলে আমার মনে হয়।

আপনার মন্তব্য দিন